ইয়াবার টাকার ভাগ যায় তারেকের কাছেও; বিএনপি নেত্রীর স্বীকারোক্তি!

0
13

গত মঙ্গলবার (২৯ সেপ্টেম্বর) গভীর রাতে মহানগরীর সদর হাসপাতাল মোড় থেকে ২০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেটসহ জেলা বিএনপির মহিলা দলের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক লায়লা সুলতানা লিজাকে (৩৮) আটক করেছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

নগরীর পাঠানপাড়া এলাকার বাসিন্দা লায়লা সুলতানা লিজা দীর্ঘদিন ধরে মাদক ও ইয়াবা ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত। এক সপ্তাহ আগে ইয়াবাসহ আটক দুজন ব্যাক্তি পুলিশকে জানায়, তারা লিজার কাছ থেকে দীর্ঘদিন থেকে ইয়াবা কিনছে।

আটকের পর বুধবার (৩০ সেপ্টেম্বর) বিকেলে তাকে বোয়ালিয়া থানা পুলিশের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

আটকের পর লিজা ডিবিকে জানিয়েছেন, বিএনপির রাজনীতির আড়ালে আগে তিনি ফেনসিডিলের ব্যবসা করতেন। এখন তিনি ইয়াবা ট্যাবলেটের ব্যবসা করছেন বলে জানান।

লিজা উপজেলা ও পৌর বিএনপির কাউন্সিল উপলক্ষে কয়েকটি উপকমিটির সদস্য হিসেবেও আছে। এ নিয়ে গত ২০ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ টাইমসে একটি সংবাদও প্রকাশ হয়। এর আগেও লিজা বেশ কয়েক বার মাদকসহ পুলিশের হাতে আটক হয়। কিন্তু এই মাদক ব্যবসায়ীকেই জেলা বিএনপির সভাপতি নাদিম মোস্তফা মহিলা দলের নেত্রী করে দেন।

নাদিম মোস্তফার সাথে লিজার একটা গোপন সখ্যতার কথাও স্বীকার করেন নগর বিএনপির এক নেতা ।

নারী হয়েও আপনি ইয়াবা ব্যাবসার সাথে কেন জড়িত এমন প্রশ্নের জবাবে লিজা জানান, বিএনপির রাজনীতি করতে হলে প্রচুর টাকার দরকার। আর বিএনপির যারাই ইয়াবা ব্যাবসার সাথে জড়িত তাদের সবাইকেই নাকি মোটা অঙ্কের একটা ভাগ লন্ডনে তারেক রহমানকে পাঠাতে হয়।

লিজার বিরুদ্ধে মাদক নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা হয়েছে বলে জানায় পুলিশ।

comments

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here